আন্তর্জাতিক ডেস্ক->>

করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন আতঙ্কের মধ্যেই ইসরায়েলে শনাক্ত হলো ‘ফ্লোরোনা’। এটি করোনা ও ইনফ্লুয়েঞ্জার সমন্বিত রূপ।

দেশটির এক অন্তঃসত্ত্বা নারীর ফ্লোরোনা শনাক্ত হয়েছে।

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম আরব নিউজ এক টুইট বার্তায় এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

বিশ্বজুড়ে ওমিক্রন আতঙ্কের কারণে বহু দেশই বুস্টার ডোজ শুরু করেছে। তবে পরিস্থিতির গুরুত্ব আঁচ করে ইসরায়েলে করোনার চতুর্থ টিকার ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে। দুর্বল রোগ প্রতিরোধ সম্পন্ন ব্যক্তিদের চতুর্থ টিকা দেওয়া হবে। চার মাস আগে দেশটির জনসংখ্যাকে করোনার তৃতীয় টিকা (বুস্টার) দেওয়া হয়েছিল।

সম্প্রতি যে হারে ওমিক্রন সংক্রমিত বাড়ছে এবং একজন আক্রান্ত হয়েছেন ফ্লোরোনায়, তাতে দুর্বল রোগ প্রতিরোধ শক্তি যাদের, তাদের চতুর্থ টিকার প্রয়োজনীয়তা আছে বলে মনে করেছে দেশটির সরকার।

এর আগে ইসরায়েলের মহামারি বিশেষজ্ঞরা ৬০ বছরের বেশি বয়সী ও স্বাস্থ্যকর্মীদের জন্য চতুর্থ বুস্টার ডোজ দেওয়ার সুপারিশ করেন। আর এ পরিকল্পনাকে স্বাগতও জানিয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী নাফতালি বেনেট।

Sharing is caring!