ক্রীড়া প্রতিবেদক->>

তৃতীয় ওয়ানডে থেকে ছিটকে গেলেন মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন। ইনজুরি কাটিয়ে দলে এই তরুণ পেস বোলিং অল রাউন্ডার। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচে বল হাতে তুলে নেন দু’টি গুরুত্বপূর্ণ উইকেট ও থাকেন ১৩ রান করে অপরাজিত। আশা করছিলেন ব্যাট হাতেও ভূমিকা রাখতে চাইছিলেন। যে কারণে বাস্তবতা কঠিন হলেও ৫ বা ৬ নম্বর পজিশনে ব্যাট হাতে খেলার আশাও প্রকাশ করেন। দ্বিতীয় ম্যাচে দলের প্রয়োজনে মুশফিকুর রহীমের সঙ্গে গড়ে তুলেছিলেন গুরুত্বপূর্ণ ৪৫ রানের জুটি। তবে ১১ রানে আউট হওয়ার আগে পেসার চামারার বল তার হ্যালমেটে আঘাত হানে। সঙ্গে সঙ্গে তাকে মাঠ থেকে এম্বুলেন্সে করে নেয়া হয় হাসপাতালে।

মাথায় স্ক্যান করিয়ে কোনো সমস্যা না পেলেও তাকে রাখা হয় ২৪ ঘণ্টার অবজারভেশনে। তবে এখন তার অবস্থা ভালো হলেও তাকে নিয়ে ঝুঁকি নিতে রাজি নয় বিসিবি। যে কারণে তাকে তৃতীয় ওয়ানডে দল থেকে বাদ দেয়া হয়েছে। এক কথায় সিরিজ থেকে ছিটকে পড়েছেন এই তরুণ। বিষয়টি এই প্রতিবেদককে নিশ্চিত করেছেন বিসিবির ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের চেয়ারম্যান আকরাম খান ও জাতীয় দলের নির্বাচক হাবিবুল বাশার সুমন। আকরাম বলেন, ‘না শেষ ম্যাচে সাইফুদ্দিনের খেলার কোনো সম্ভাবনা নেই।’

এ ছাড়াও নির্বাচক সুমন বলেন, ‘ও (সাইফুদ্দিন) এই সিরিজ থেকে ছিটকে পড়েছে। ওর পরিবর্তে নতুন কেউ দলে আসেনি। স্কোয়াডে অন্য পেসাররা তার বিকল্প হিসেবে থাকবে।’ এখন দেখার বিষয় আগামী মাসে জিম্বাবুয়ে সফরে এই তরুণ পেস বোলিং অলরাউন্ডারের দলে জায়গা হয় কিনা। তার বর্তমান অবস্থা নিয়ে বিসিবির চিকিৎসক মঞ্জুর হোসাইন চৌধুরী বলেন, ‘সাইফুদ্দিনের স্ক্যান হয়েছে। আরো দুই একটি পরীক্ষা হয়েছে। আজ (গতকাল) তার অবস্থা আগের চেয়ে অনেক ভালো আছে। আশা করি দ্রুত ভালো হয়ে যাবেন।’

Sharing is caring!