পরশুরাম প্রতিনিধি->>

পরশুরামে প্রতিবেশী এক নারীর মুঠোফোন চুরি ও সেই মুঠোফোন দিয়ে ওই নারীকে উত্ত্যক্তের অভিযোগ উঠেছে এনায়েত হোসেন ওরফে আকাশ (২১) নামে ছাত্রলীগের এক নেতার বিরুদ্ধে। স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যানের সহায়তায় তাঁকে আটক করে শুক্রবার রাতে পুলিশে দেন এলাকাবাসী। শনিবার তাঁকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

এনায়েত হোসেন ওরফে আকাশ উপজেলার পশ্চিম মির্জানগর গ্রামের আলমগীর হোসেনের ছেলে ও মির্জানগর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের ক্রীড়াবিষয়ক সম্পাদক।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, এনায়েত হোসেন কয়েক দিন আগে রাতের বেলায় প্রতিবেশী এক নারীর মুঠোফোন চুরি করে নিয়ে যান। পরে সেই মুঠোফোন দিয়ে ওই নারীকে উত্ত্যক্ত করতে শুরু করেন। একপর্যায়ে ওই নারী স্থানীয় লোকজনকে বিষয়টি অবহিত করেন। শুক্রবার রাতে মির্জানগর ইউপির চেয়ারম্যান নুরুজ্জমান ভুট্টোর সহযোগিতায় এলাকার লোকজন এনায়েতকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেন।

ইউপি চেয়ারম্যান নুরুজ্জমান ভুট্টো বলেন, ছাত্রলীগের নেতা এনায়েত হোসেনের বিরুদ্ধে আইনগত ও সাংগঠনিক ব্যবস্থা নিতে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের অনুরোধ করেছেন তিনি।

পরশুরাম মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শওকত হোসেন বলেন, এনায়েত হোসেনের বিরুদ্ধে আগেও চুরির কয়েকটি মামলা রয়েছে। শনিবার তাঁকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

Sharing is caring!