বিশেষ প্রতিনিধি->>

অবরোধের সমর্থনে ফেনী সরকারি কলেজের প্রধান ফটকে তালা দিয়ে ব্যানার টাঙানোর ঘটনায় দুই ছাত্রদল নেতাকে আটক করে পুলিশে দিয়েছেন ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা।

আটকরা হচ্ছেন ফেনী সরকারি কলেজ ছাত্রদলের যুগ্ম-আহ্বায়ক জিল্লুর রহমান ও ফাজিলপুর ইউনিয়ন ছাত্রদলের সভাপতি একরামুল হক।

বুধবার (৮ নভেম্বর) সকাল ৭টার দিকে কলেজের প্রধান ফটকে তালা লাগিয়ে একটি ব্যানার ঝুলিয়ে দেন ছাত্রদল নেতারা।

ব্যানারে লেখা ছিল—‘রাষ্ট্র মেরামতের কাজ চলছে। সাময়িক অসুবিধার জন্য দুঃখিত। এক দফা দাবি আদায়ে সর্বাত্মক অবরোধ; ফেনী সরকারি কলেজ ছাত্রদল’।

তবে ফেনী সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক মোক্তার হোসাইন বলেন, ‘লোকমুখে শুনেছি কে বা কারা কলেজের গেটে তালা দিয়েছে। তবে আমরা এর কোনো অস্তিত্ব পাইনি।’

এ বিষয়ে ছাত্রলীগের সভাপতি নোমান হাবিব বলেন, ‘কলেজে তালা দিয়ে ব্যানার টাঙানোর ঘটনায় ছাত্রদলের দুজনকে আটক করে পুলিশে দেওয়া হয়েছে।’

জানতে চাইলে জেলা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক মোর্শেদ আলম মিলন বলেন, ‘জিল্লুর রহমান ও একরামের বিরুদ্ধে কোনো ওয়ারেন্ট নেই। তারপরও আওয়ামী সন্ত্রাসীরা জিল্লুকে তার বাড়ি থেকে এবং একরামকে তার ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান থেকে মারধর করে পুলিশে দিয়েছে। পুলিশ তাদের মিথ্যা মামলায় গ্রেফতার করেছে। আমরা এর নিন্দা জানাই।’

ফেনী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ শহীদুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, জিল্লু ও একরাম নামের দুই যুবককে পৃথক ঘটনায় আটক করা হয়েছে। তাদেরকে আদালতে সোপর্দ করার প্রস্তুুতি চলছে।