শহর প্রতিনিধি->>

ফেনীতে প্রতিবাদ সভা ও বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে পূজা উপদযাপন পরিষদ। কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে সোমবার বিকেলে শহরের ট্রাংক রোডস্থ কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার চত্বরে প্রতিবাদ ও বিক্ষোভ সমাবেশ সভাপতিত্ব করেন জেলা পূজা পরিষদের সিনিয়র সহ-সভাপতি মাস্টার হিরালাল চক্রবর্তী। সমাবেশ শেষে ট্রাংক রোডের জিরোপয়েন্ট থেকে বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে জয়কালী মন্দিরের সামনে গিয়ে কর্মসূচি সম্পন্ন হয়।

ফেনী জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের উদ্যোগে আয়োজিত প্রতিবাদ ও বিক্ষোভ সমাবেশ সঞ্চালনা করেন জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক অনিল নাথ। বক্তব্য রাখেন জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সাবেক সভাপতি রাজীব খগেশ দত্ত, এডভোকেট বিমল চন্দ্র শীল, সাবেক সাধারন সম্পাদক এডভোকেট সমীর চন্দ্র কর, হিন্দু মহাজোটের সাধারণ সম্পাদক শম্ভু বৈষ্ণব, জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সহ-সভাপতি শান্তি চৌধুরী প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, মিথ্যা মামলায় গ্রেপ্তারকৃত ভোলা জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি গৌরাঙ্গ দে’র অনতিবিলম্বে মুক্তি চাই দিতে হবে। তাকে মুক্তি না দিলে আগামীতে আরো বড় ধরনের আন্দোলনের হুঁশিয়ারি তুলেন বক্তারা। তারা বলেন, আসন্ন শারদীয় দুর্গাপূজাকে সামনে রেখে সাম্প্রদায়িক বিষফোঁড়া আবার দেশে মাথাচাড়া দিয়ে উঠছে। দেশব্যাপী মন্দির ও প্রতিমা ভাংচুর এবং সংখ্যালঘুদের ওপর নির্যাতন-নিপীড়ন বন্ধ করতে সরকারের কঠিন হস্তক্ষেপ কামনা করা হয়।

কর্মসূচীতে ফেনী পৌর পূজা উদযাপন পরিষদ, দাগনভূঞা পূজা উদযাপন পরিষদ, সোনাগাজী পূজা উদযাপন পরিষদ, ফুলগাজী পূজা উদযাপন পরিষদ, সাধারণ সম্পাদক বিপ্লব কান্তি দত্ত, ছাগলনাইয়া পূজা পরিষদসহ সংগঠনের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ, মুক্তিযোদ্ধা, সাংবাদিকসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার লোকজন উপস্থিত ছিলেন।

Sharing is caring!