শহর প্রতিনিধি->>

ফেনী সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান পদে উপ-নির্বাচনে মনোনয়ন পত্র দাখিলের শেষ দিনে আওয়ামী লীগ মনোনীত শুসেন চন্দ্র শীল মনোনয়ন পত্র দাখিল করেছেন। সোমবার দুপুরে একক প্রার্থী হিসেবে সদর উপজেলা আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক শুসেন শীল জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. নাছির উদ্দিন পাটওয়ারীর কাছে মনোনয়ন জমা দেন।

এসময় ফেনী পৌরসভার মেয়র নজরুল ইসলাম স্বপন মিয়াজী, সদর উপজেলা পরিষদের অস্থায়ী চেয়ারম্যান (ভাইস চেয়ারম্যান) এ.কে শহীদ উল্যাহ খোন্দকার, জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি মাষ্টার আলী হায়দার, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি করিম উল্যাহ বি.কম, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি আয়নুল কবির শামীম, পাঁচগাচিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আনোয়র হোসেন মানিক প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. নাছির উদ্দিন পাটওয়ারী জানান, সদর উপজেলা পরিষদে চেয়ারম্যান পদে উপ-নির্বাচনে আওয়ামী লীগ ছাড়া, অন্যকোন দল বা স্বতন্ত্র প্রার্থী মনোনয়ন পত্র দাখিল করেনি। তফসিল অনুযায়ী ১৪ সেপ্টেম্বর প্রার্থীতা যাচাই-বাছাই অনুষ্ঠিত হবে। আগামী ১৯ সেপ্টেম্বর প্রার্থীতা প্রত্যাহারের শেষ দিন ধার্য্য রয়েছে। আগামী ৭ অক্টোবর নির্বাচনের দিন ধায্য রয়েছে। সদর উপজেলায় ৩ লাখ ৭৮ হাজার ৭শ ৪৬ জন ভোটার রয়েছে। তবে একক প্রার্থী মনোনয়ন পত্র জমা দেওয়ায় যাচাই-বাছায়ে বৈধ হলে ও প্রার্থীতা প্রত্যাহার না হলে এ উপজেলায় নির্বাচনের প্রয়োজন হচ্ছে না বলে তিনি মনে করছেন।

গত ৭ সেপ্টেম্বর তৃণমূলের ভোটাভুটিতে জয়ী হওয়ায় জেলা আওয়ামীলীগের পক্ষ থেকে তার জন্য দলের হাইকমান্ডে সুপারিশ করা হয়। গত ৮ সেপ্টেম্বর রাজধানীর ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয় থেকে মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করে জমা দেন জেলা যুবলীগ ও ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক শুসেন চন্দ্র শীল। গত ১১ সেপ্টেম্বর আওয়ামী লীগের স্থানীয় সরকার ও সংসদীয় মনোনয়ন বোর্ডের যৌথসভায় শুসেন চন্দ্র শীলকে প্রার্থী ঘোষণা করা হয়।

প্রসঙ্গত; গত ১৩ আগস্ট সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আবদুর রহমান বি.কম মারা যাওয়ার পর চেয়ারম্যান পদটি শূণ্য হয়ে যায়।

Sharing is caring!