স্পোর্টস ডেস্ক->>

পিএসজির ঘরের মাঠ পার্ক দেস প্রিন্সেস মিলনায়তনে বুধবার এক সংবাদ সম্মেলন আয়োজন করা হয়। সেখানেই মেসিকে পিএসজির খেলোয়াড় হিসেবে উপস্থাপন করা হয়।

সংবাদ সম্মেলনে তার সঙ্গে হাজির হন পিএসজির কাতারি প্রেসিডেন্ট নাসের আল-খেলাইফি। এসময় মেসিকে একনজর দেখতে স্টেডিয়ামের বাইরে হাজির হন হাজারো পিএসজি সমর্থক।

নেইমারের সঙ্গে খেলা নিয়ে আলাদাভাবে বলেন মেসি, ‘নেইমার আছে, ডি মারিয়া আছে ড্রেসিংরুমে ঢুকতে আমার তর সইছে না। নেইমার আমার জন্য অনেক কিছু করেছে। নিয়মিত যোগাযোগ হয় তার সঙ্গে। ’

এর আগে মঙ্গলবার দিনগত রাতে পিএসজির সঙ্গে দুই বছরের চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন মেসি। তবে দুই পক্ষ চাইলে চুক্তির মেয়াদ আরও এক বছর বাড়ানোর সুযোগ রাখা হয়েছে। পার্ক দেস প্রিন্সেসে প্রতি মৌসুমে তিনি বেতন পাবেন ২৫ মিলিয়ন ইউরো। তবে বোনাস ও অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা মিলিয়ে তার মোট আয় দাঁড়াবে ৩৫ মিলিয়ন ইউরো।

প্যারিসিয়ানদের হয়ে ৩০ নম্বর জার্সিতে মাঠ মাতাবেন আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড। যদিও শুরুতে প্রিয় বন্ধুর জন্য পিএসজিতে নিজের ’১০’ নম্বর জার্সি ছাড়তে চেয়েছিলেন নেইমার জুনিয়র। কিন্তু মেসি রাজি হননি। তারচেয়ে বরং বার্সায় ক্যারিয়ারের শুরুতে নিজের ৩০ নম্বর জার্সিকেই বেছে নেন আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড। তবে এই জার্সি নম্বর সাধারণত লিগ ওয়ানের গোলরক্ষকদের দেওয়া হয়। তবে মেসির জন্য সেই নিয়মেও বদলে গেল।

Sharing is caring!