বিনোদন ডেস্ক->>

বিনোদন পাড়ায় নিয়মিত ঘটে সংসার গড়া কিংবা ভাঙ্গার চিত্র। এরই ধারাবাহিকতায় এবার সংসার ভাঙ্গলো ক্লে‌জআপ তারকা ফেনীর মেয়ে পুতু‌লের।

কানাডা প্রবাসী আলোকচিত্রী ইসলাম নুরুলের সঙ্গে ২০১৯ সালের ২০ মার্চ বিয়েবন্ধনে আবদ্ধ হন ক্লোজআপ তারকা সাজিয়া সুলতানা পুতুল। মত ও আদর্শিক মিল না হওয়ায় সেই বছরই তা‌দের বি‌চ্ছেদ হয়। তবে স্পষ্ট করে তারিখটি বলেননি এই গায়িকা-লেখিকা। আজ তাদের বাগদানের দুই বছর পূর্তি। ত‌বে এর কিছুক্ষণ আগেই রোববার রাত সাড়ে ১১টার দিকে বি‌চ্ছে‌দের বিষয়টি জানালেন এই গায়িকা।

তিনি বলেন, ‘আমরা বিয়ের কয়েকদিন পরই বুঝতে পারি, আমাদের মতের মিল নেই। বিষয়টি আস্তে আস্তে খারাপের দিকে মোড় নেয়। বিয়ের বছরই আমাদের বিচ্ছেদ হয়েছে। বিষয়টি গোপনই রেখেছিলাম। কিন্তু টিভিসহ বিভিন্ন মিডিয়ায় বারংবার সংসার জীবন নিয়ে প্রশ্নের মুখোমুখি হতে হচ্ছিল আমাকে। অনেকে বিয়ে বার্ষিকীতেও শুভেচ্ছা জানাতেন। নিজের আসল জীবনটা লুকিয়ে এগুলো মেনে নিতে হতো। এবারও (দ্বিতীয় বছরপূর্তি) হয়তো সেটাই ঘটবে, তাই আমার একক জীবনটা প্রকাশ করলাম।’

নিজের বর্তমান অবস্থা নিয়ে রবিবার (১৪ মার্চ) রাতে ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাসও প্রকাশ করেছেন পুতুল। সেখানে তি‌নি লেখেন, ‘দুই বছর আগে বিয়ের বন্ধনে আবদ্ধ হয়েছিলাম, ঢুকেছিলাম যুগল জীবনযাপনে। বিবাহিত জীবনের খুব অল্প দিনের মাথায় বুঝেছিলাম পথটা কঠিন থেকে কঠিনতর হচ্ছে। এই পথটা ঠিক যেন আমার কল্পনার সেই পথটা নয়, যে পথে আনন্দে হেঁটে নেওয়া যায় অক্লেশে। মত আর আদর্শিক পার্থক্যগুলো নিছক পার্থক্য থেকে রূপ নিচ্ছিল চূড়ান্ত দ্বন্দ্বে। সম্পর্ক মুমূর্ষু হচ্ছিলো, ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছিলো আমার সৃষ্টিশীল সত্তা। বিচ্ছিন্নতার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম তখনই। হয়েছিলো বিচ্ছেদ। অতঃপর আবার আমার সেই একক জীবনে ফেরা, সুর আর সাহিত্যের সাথে নির্বিঘ্ন একক সংসার। বিয়েটা ঘটা করে হবার বিষয়, বিচ্ছেদে ঘটা করার কিছু নেই। বিচ্ছেদে বিষাদের সুর বাজে আত্মায়। সেই সুর মন পাড়াতে একলা বাজা-ই ভালো। সকলকে নিয়ে সেই বিচ্ছেদী সুর উদযাপনের কিছু নেই।’

তিনি আরও লেখেন, ‘কিন্তু চূড়ান্ত সত্য এই, সেই বিষাদে কোথাও মুক্তির গন্ধ মিশে থাকে, থাকে মুমূর্ষতার অবসানে লম্বা করে নিশ্বাস নেওয়া। জীবনটা বেঁচে ওঠার সুযোগ পায় আরও একবার। সেই জীবনটাকে বাঁচিয়ে দেয়া জীবনের প্রতিই সুবিচার বলে বিশ্বাস করি।’

২০১৯ সালের ১৫ মার্চ পারিবারিকভাবে পুতুল-নুরুলের বাগদান সম্পন্ন হয়েছিল। এরপর ২০ মার্চ তাদের বিয়ে ও বিবাহোত্তর সংবর্ধনা হয়। অনুষ্ঠানে দুই পরিবার ছাড়াও মিডিয়ার অনেক তারকা উপস্থিত হয়ে শুভকামনা জানিয়েছিলো তাদের।

Sharing is caring!