শহর প্রতিনিধি->>

ফেনী শহরের একাডেমী বনানী পাড়া এলাকায় বস্তিতে ৩ বছরের শিশুকে একা পেয়ে ধর্ষণ করেছে শহীদুল ইসলাম নামের এক বখাটে যুবক। প্রায় ১৫ দিন আগে ঘটনা ঘটলেও বুধবার পুলিশ ঘটনাস্থলে যেয়ে শিশুটির জবানবন্ধী গ্রহণ ও পরনের প্যান্টটি উদ্ধার করেছে। ঘটনাটি জানাজানি হওয়ার পর থেকে পলাতক রয়েছে অভিযুক্ত শহীদুল ইসলাম।

নির্যাতিতার পরিবার সূত্র জানায়, শহরের বনানী পাড়া এলাকার পুরাতন রেললাইন সংলগ্ন ডুবাই ট্রাস্টের বস্তিতে সন্তানদের নিয়ে দীর্ঘদিন বসবাস করেন স্বামী পরিত্যাক্তা এক নারী। তিনি ভাষা শহীদ সালাম স্টেডিয়াম সংলগ্ন ফারুক হোটেলের সামনে ভ্যানগাড়িতে সবজি বিক্রি করে জীবিকা নির্বাহ করেন। প্রায় ১৫ দিন আগে দুপুরে তার ৩ বছরের শিশু কন্যাকে একা পেয়ে ধর্ষণ করে প্রতিবেশী শহীদুল ইসলাম নামের এক রাজমিস্ত্রী। শিশুটি কিছু না জানাতে পারলেও শরীরের বিভিন্ন স্থানে ক্ষতচিহ্ন দেখে মায়ের সন্দেহ হয়। পরে তার পরনের প্যান্ট পেলে প্রতিবেশী এক ব্যক্তি শহীদুলের কথা শিশুটির মাকে জানায়।

শিশুটির মা জানান, ঘটনার জন্য গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় শহীদুল ও তার বাবা-মা সহ পরিবারের সদস্যরা তার কাছে ক্ষমা চায়। স্থানীয়দের মাধ্যমে রাতে তিনি বিষয়টি ফেনী মডেল থানায় অবহিত করেন। বুধবার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে শিশুটির জবানবন্ধী গ্রহণ ও পরনের প্যান্টটি উদ্ধার করে।

ফেনী মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো: আলমগীর হোসেন বলেন, বিষয়টি জানার পর পুলিশ তদন্ত করছেন। অভিযোগের সত্যতা পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Sharing is caring!