নিজস্ব প্রতিনিধি->>
ফেনীতে করোনাভাইরাসে সহকারী কমিশনার (ভূমি), চিকিৎসক, একাধিক পুলিশসহ নতুন করে আক্রান্ত হয়েছে ৪৯ জন। এনিয়ে জেলায় আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়ালো ৫৬৩ জন। এর মধ্যে ১১ জন মারা গেছেন। সুস্থ হয়েছেন ১২১ জন। মঙ্গলবার দুপুরে এমন তথ্য জানিয়েছে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ।

স্বাস্থ্য বিভাগ জানান, গত ২৪ ঘন্টায় নোয়াখালীর আবদুল মালেক উকিল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরীক্ষাগারে ১৪৪টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। এদের মধ্যে নতুন আক্রান্ত হয়েছে ৪৯ জন। নতুন শনাক্তকৃতদের মধ্যে ছাগলনাইয়ার সহকারী কমিশনার (ভূমি), সোনাগাজী স্বাস্থ্য কমপ্রেক্সের আবাসিক চিকিৎসক, ৮ পুলিশ সদস্য রয়েছেন। আক্রান্তদের মধ্যে ফেনী সদরে ২৫ জন, সোনাগাজীতে ১৩ জন, দাগনভুঞায় ৮ জন, ফুলগাজীতে দুই জন ও ছাগলনাইয়ায় একজন রয়েছেন। এছাড়া পূর্বের আক্রান্ত একজন দ্বিতীয় ধাপের পরীক্ষায়ও পজেটিভ এসেছে।

ছাগলনাইয়ায় আক্রান্ত হয়েছেন উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) নাহিদা আক্তার তানিয়া। সদর উপজেলায় আক্রান্ত ২৫ জনের মধ্যে ৮ জন পুলিশ সদস্য রয়েছে। রয়েছে। সোনাগাজী উপজেলায় আক্রান্ত ১৩ জনের মধ্যে সোনাগাজী স্বাস্থ্য কমপ্রেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডা. আরমান বিন আবদুল্লাহ সুজন রয়েছে। অপর আক্রান্তদের মধ্যে এছাড়া নবাবপুর ইউনিয়নে ৭ জন, সদর ইউনিয়নের ৩ জন, চরচন্দিয়া ইউনিয়নে ২ জন ও মতিগঞ্জ ইউনিয়নে এক জন। অপরদিকে দাগনভুঞায় আক্রান্ত ৮ জনের মধ্যে পৌরসভা এলাকার চারজন, মাতুভূঞায় এলাকায় তিনজন ও জায়লস্কর এলাকায় একজন রয়েছে।

ফেনী স্বাস্থ্য বিভাগের তথ্যমতে, গত ১৬ এপ্রিল ফেনীতে প্রথম এক যুবকের শরীরে করোনাভাইরাসের সংক্রামন শনাক্ত হয়। মঙ্গলবার পর্যন্ত জেলায় ৪০২২ জনের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষাগার জন্য নোয়াখালী আবদুল মালেক মেডিকেল কলেজে, চট্টগ্রামের বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ট্রপিক্যাল অ্যান্ড ইনফেকশাস ডিজিজেজ (বিআইটিআইডি), চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি ও অ্যানিমেল সায়েন্সেস বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রেরণ করা হয়।

এদের মধ্যে ২৯৯৯ জনের প্রতিবেদন পেয়েছে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ। এদের মধ্যে চিকিৎসক, স্বাস্থ্যকর্মী, পুলিশ সদস্য, গণমাধ্যমকর্মী, জনপ্রতিনিধি, সরকারী কর্মকর্তা, ব্যাংকার, প্রকৌশলীসহ ৫৬৩ জনের পজেটিভ রিপোর্ট পেয়েছে। বর্তমানে সিভিলি সার্জনসহ ১৮ জন করোনা রোগী ফেনী জেনারেল হাসপাতালের আইসোলেশন ওয়ার্ডে ভর্তি রয়েছেন। অপর আক্রান্তরা স্বাস্থ্য বিভাগের অধীনে হোম আইসোলেশনে থেকে চিকিৎসা নিচ্ছেন। এদের মধ্যে ১০ জনকে অন্যত্র স্থানান্তর করা হয়েছে।

মঙ্গলবার নতুন করে পরীক্ষার জন্য আরও ২২১টি নমুনা প্রেরণ করা হয়েছে। এ পর্যন্ত ফলাফলের অপেক্ষায় রয়েছে ১০২৩টি নমুনা।

জেলায় মোট কোভিড আক্রান্ত ৫৬৩ জনের মধ্যে ফেনী সদর উপজেলায় ২০৭ জন, দাগনভূঞা ১২৮ জন, সোনাগাজীতে ৯৮ জন, ছাগলনাইয়ায় ৬৩ জন, ফুলগাজীতে ৩১ ও পরশুরামে ২৮ জন জন। এ ছাড়া পাশের চট্টগ্রাম, মিরসরাই, চৌদ্দগ্রাম ও সেনবাগের ৮ জন। ফেনী জেনারেল হাসপাতালে নমুনা পরীক্ষা দিয়ে তারা শনাক্ত হওয়ার প্রতিবেদন পেয়েছে।

Sharing is caring!