বিশেষ প্রতিবেদক->>

ফেনী-২ আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নিজাম উদ্দিন হাজারী বলেন, শেখ হাসিনার কল্যাণে ফেনী সদর ও পৌরসভার ৪২ হাজার উপকারভোগী ভাতা পাচ্ছেন। কেবল প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাই পারেন জনমানুষের কল্যাণ করতে। অন্য কোন দল ক্ষমতায় এলে ভবিষ্যতে সেটি অনিশ্চিত হয়ে পড়তে পারে। তাই যে যেই দলের সমর্থন করুন না কেন, উন্নয়নের স্বার্থে নৌকায় ভোট দিতে হবে।

মঙ্গলবার বিকেলে ফেনী সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে যৌথভাবে ধন্যবাদ জ্ঞাপন অনুষ্ঠানের আয়োজন করে ফেনী সদর উপজেলা ও ফেনী পৌরসভা।

অনুষ্ঠানে সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচির আওতায় উপকারভোগী ফেনী সদরের ৪২ হাজার ভাতাভোগী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছে।

ফেনী সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শুসেন চন্দ্র শীলের সভাপতিত্বে ও ভাইস চেয়ারম্যান একে শহিদ উল্লাহ খন্দকারের সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন ফেনী জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা এডভোকেট হাফেজ আহাম্মদ, ফেনী পৌরসভার মেয়র নজরুল ইসলাম স্বপন মিয়াজী।

অনুষ্ঠানে রহিম উল্লাহ নামে একজন উপকারভোগী বলেন, এ দেশে অনেকে ক্ষমতায় এসেছে। কিন্ত শেখ হাসিনার মতো কেউ গরীবের কথা ভাবেনি। এ সরকারই মানুষের জন্য কাজ করেছে। আমরা শেখ হাসিনার প্রতি কৃতজ্ঞ।

ভাতাপ্রাপ্ত বীর মুক্তিযোদ্ধা আশরাফ উদ্দিন মাস্টার বলেন, মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য এ সরকারের অবদান কখনও ভুলবার নয়। বিগত কোন সরকার আমলে এত ভাতা ছিল না। মুক্তিযোদ্ধারাও প্রাপ্য সম্মান পেত না। কিন্তু বর্তমান সরকার মুক্তিযোদ্ধাদের ২০ হাজার টাকা ভাতা দিচ্ছেন। আমরা কৃতজ্ঞতা জানাই। বীর নিবাস আবাসন প্রকল্পের জন্য প্রধানমন্ত্রীর ধন্যবাদ প্রাপ্য।
আবদুল কাইয়ুম নামে আরেক ভাতাভোগী বলেন, প্রধানমন্ত্রী আমাদের মাথা গোঁজার ঠাঁই দিয়েছেন। বেঁচে থাকার জন্য ভাতা দিচ্ছেন। আমরা তার প্রতি কৃতজ্ঞত।