শহর প্রতিনিধি->>
বাংলাদেশ স্কাউটস ফেনী সদর উপজেলার নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণা করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার নির্বাচনে আমির হোসেন ও ফরিদুর রহমান ভূঞা প্যানেল বিজয়ী হয়েছে।
বিকালে ভোটগ্রহণ শেষে প্রধান নির্বাচন কমিশনার সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ নাসরীন সুলতানা ফলাফল ঘোষণা করেন।

নির্বাচনে আমির হোসেন ও ফরিদুর রহমান ভূঞা এবং কাজী ওয়াজি উল্লাহ ও উত্তম কুমার দত্ত প্যানেল থেকে মোট ২৬ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে। নির্বাচনে আমির হোসেন ও ফরিদুর রহমান ভূঞা প্যানেল বিজয়ী হয়। এতে গ্রুপ সভাপতি পদে ৪জন, সহ-সভাপতি পদে ৫ জনসহ মোট ১৩টি পদের জন্য কাউন্সিলররা ভোট প্রদান করেন। দুপুর ১২টা থেকে ২ টা পর্যন্ত ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়।

ফলাফলে মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের গ্রুপ সভাপতি পদে রুহুল আমিন ও শামীমা আক্তার, প্রাথমিক বিদ্যালয়ের গ্রুপ সভাপতি পদে নকুল চন্দ্র শীল ও হাসনা আক্তার বানু বিজয়ী হয়েছেন।

মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের গ্রুপ সভাপতি পদে রুহুল আমিন ১শ ৮৩ ভোট পেয়ে তার প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী উত্তম কান্তি মজুমদারকে হারিয়ে বিজয়ী হন। উত্তম কান্তি মজুমদার পেয়েছেন ১শ ১১ ভোট। একই পদে শামীমা আক্তার ১শ ৯২ পেয়ে তার প্রতিদ্বন্দী জাফর উদ্দিনকে হারিয়ে বিজয়ী হন। জাফর উদ্দিন পান ৯৯ ভোট।

প্রাথমিক বিদ্যালয়ের গ্রুপ সভাপতি পদে নকুল চন্দ্র শীল ১শ ৯৭ ভোট পেয়ে বিজয়ী হন। তার প্রতিদ্বন্দ্বী রাজন কুমার মন্ডল পেয়েছেন ১শ ২২ ভোট। একই পদে হাসনা আক্তার বানু ১শ ৭৮ ভোট পেয়ে বিজয়ী হন। তার প্রতিদ্বন্দ্বি ফেরদৌস আক্তার শাহীন পেয়েছেন ১শ ২২ ভোট।

নির্বাচনে সহ-সভাপতি পদে মো: তাজুল ইসলাম চৌধুরী, মো: শাহআলম, মো: আবুল কাশেম, ছেরাজুল ইসলাম মজুমদার ও আবদুল্লাহ আল মাহমুদ বিজয়ী হয়েছেন।

নির্বাচনে সহ সভাপতি পদে মো: তাজুল ইসলাম চৌধুরী ২শ ১৫ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন। তার প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী মো: মাহমুদুল হাসান পান ৯৫ ভোট। অন্যদিকে একই পদে মো: শাহ আলম ১শ ৯৫ পেয়ে নির্বাচিত হন। তার প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী মো: সাহেদ আলম পান ১শ ৭ ভোট। এ পদে মো: আবুল কাশেম ২শ ৩২ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন। তার প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী মো: নেয়ামত উল্যাহ ৯২ ভোট পেয়েছেন। সহ-সভাপতি পদে ছেরাজুল ইসলাম মজুমদার ২শ ১৪ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন। তার প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী অসীম কৃষ্ণ দাস ১শ ২১ ভোট পান। সহ-সভাপতি পদে আবদুল্লাহ আল মাহমুদ পান ১শ ৫৯ প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী মো: ইয়াছিন ১শ ৩৯।

কমিশনার পদে ফরিদুর রহমান ভূঞা ২শ ১৭ ভোট পেয়ে বিজয়ী হন। তার প্রতিদ্বন্দ্বী কাজী ওয়াজি উল্লাহ পান ১শ ৩৯ ভোট। কোষাধ্যক্ষ পদে ফকির আহমেদ ফয়েজ ১শ ৬৩ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন। তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী মো: সাহাব উদ্দিন পান ৮৭ ভোট। সাধারণ সম্পাদক পদে আমির হোসেন ১শ ৮৪ ভোট পেয়ে বিজয়ী হন। তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী উত্তম কুমার দত্ত পান ১শ ২০ ভোট। যুগ্ম সম্পদাক পদে নুরুল ইসলাম ১শ ৫৬ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন। তার প্রতিদ্বন্দ্বি মো: তৌহিদুল ইসলাম ১শ ৩০ ভোট পান।

উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা নাজনীন সুলতানা জানান, নির্বাচনে মাধ্যমিক, প্রাথমিক বিদ্যালয় ও মাদ্রাসার মোট ৪শ ৬৭ কাউন্সিলরের মধ্যে ৪ শ জন ভোট প্রদান করেন। কাউন্সিলরদের মধ্যে মাধ্যমিক ও মাদ্রাসার ১শ ৭৬জন এবং প্রাথমিকে ২শ ৮৯জন ভোটার ছিলেন। পদাধিকার বলে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সভাপতি ও শিক্ষা কর্মকর্তারা সদস্য হিসাবে থাকবেন।

এর আগে বৃহস্পতিবার সকালে ফেনী সদর উপজেলা স্কাউটসের ত্রি বার্ষিক কাউন্সিল সদর উপজেলা মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন সদর উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মোঃ সাইফুর রহমান, মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা নাজনীন সুলতানা, বাংলাদেশ স্কাউট নোয়াখালী জোনের সহকারি পরিচালক মাসুম বিল্লাহ, ফেনী জেলা স্কাউটসের সাধারণ সম্পাদক এ কে এম ফরিদ আহাম্মদ।

Sharing is caring!