পরশুরাম প্রতিনিধি->>

পরশুরামে আওয়ামী লীগ নেতা শাহীন চৌধুরী হত্যা মামলার অন্যতম আসামি মির্জানগর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মো. নুরুজ্জামান ভুট্টো জামিনে মুক্তি পেয়েছেন। দীর্ঘ চার মাস কারাভোগের পর বুধবার (১১ মে) সন্ধ্যার ফেনী কারাগার থেকে মুক্তি পান। কারাফটকে এসময় উপস্থিত ছিলেন তার পরিবারের সদস্যরা।

এর আগে গত বুধবার বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে ভুট্টুো চেয়ারম্যানের আইনজীবী জামিনের আবেদন করলে, হাইকোর্টের একটি দ্বৈত বেঞ্চের বিচারক ভুট্টোুর জামিনের আবেদন মঞ্জুর করেন।

মো. নুরুজ্জামান ভুট্টো উপজেলার মির্জানগর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক।

জানা যায়, গত বছরের ২৩ ডিসেম্বর পরশুরামের উত্তর বাজারে আওয়ামী লীগ নেতা শাহীন চৌধুরীকে হত্যার অভিযোগে তার স্ত্রী ফিরোজা আক্তার বাদী হয়ে ভুট্টাে চেয়ারম্যানসহ ছয় জনের বিরুদ্ধে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। ২৭ ডিসেম্বর গ্রেফতারকৃত দুই আসামি ভুট্টুো চেয়ারম্যানের নির্দেশে শাহীন চৌধুরীকে হত্যার দায় স্বীকার করে আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক ১৬৪ ধারা জবানবন্দি দিয়েছেন। চলতি বছরের ৪ জানুয়ারি গাজীপুরের টঙ্গীর চেরাগআলী নামক স্থান থেকে র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটেলিয়ন (র‌্যাব) নুরুজ্জামান ভুট্টুোকে গ্রেপ্তার করে।

গ্রেপ্তারের পর কারাগার থেকে তিন ঘন্টার প্যারলে মুক্তি পেয়ে গত ১৩ জানুয়ারি মির্জানগর ইউপি চেয়ারম্যান হিসাবে নুরুজ্জামান ভুট্টো শপথ গ্রহণ করেছেন।

বাদীপক্ষের আইনজীবী এডভোকেট সাইফুদ্দিন মজুমদার শাহীন জানান, মোঃ নুরুজ্জামান ভুট্টো হাইকোর্ট থেকে জামিনে মুক্তি পেয়ে বুধবার ফেনী কারাগার থেকে মুক্তি পেয়েছে।